আবাসন

রিহ্যাব ফেয়ার শেষ হচ্ছে আজ

স্টাফ রিপোর্টার:
পাঁচ দিনব্যাপী রিহ্যাব উইন্টার ফেয়ার ২০১৯ শেষ হচ্ছে আজ শনিবার। শুক্রবার ছুটির দিন হওয়ায় দুপুরের পর থেকে ব্যাপক ক্রেতা সমাগম হয় রিহ্যাব ফেয়ারে। সকালের দিকে আবহাওয়া খারাপ থাকায় তুলনামূলকভাবে কম ক্রেতা প্রবেশ করলেও পরে তা বাড়তে থাকে। সন্ধ্যার দিকে পরিপূর্ণ হয় মেলা প্রাঙ্গন।

গতকাল দুপুরের পর মেলা প্রাঙ্গন পরিদর্শন করেন রিহ্যাব প্রেসিডেন্ট আলমগীর শামসুল আলামিন (কাজল), রিহ্যাব এর ভাইস প্রেসিডেন্ট লিয়াকত আলী ভূইয়া, ভাইস প্রেসিডেন্ট এবং মেলা কমিটির কো-চেয়ারম্যান কামাল মাহমুদ এবং ভাইস প্রেসিডেন্ট (ফিন্যান্স) এবং মেলা কমিটির চেয়ারম্যান (ভারপ্রাপ্ত) প্রকৌশলী মোহাম্মদ সোহেল রানা।

পরিদর্শন শেষে রিহ্যাবের ভাইস প্রেসিডেন্ট (প্রথম) লিয়াকত আলী ভূইয়া বলেন, ক্রেতা এবং বিক্রেতাদের মধ্যে সমন্বয় ঘটাতে আমাদের এই ফেয়ারের আয়োজন। বিভিন্ন ডেভেলপার প্রতিষ্ঠান মেলায় তাদের পণ্য সম্পর্কে ক্রেতাদের নিকট তুলে ধরছেন। মেলা শেষে নার্সিং এর মাধ্যমে এর মধ্যে থেকে অনেক ফ্ল্যাট বা প্লট কিনবেন বলে প্রত্যাশা করেন তিনি।

মেলার বিষয়ে রিহ্যাবের ভাইস প্রেসিডেন্ট কামাল মাহমুদ জানান, অন্য বছরের তুলনায় এ বছর মেলায় ক্রেতা সমাগম বেশি। মেলায় ৮০ থেকে ৯০ শতাংশই মধ্যবিত্ত ও নিম্নধ্যবিত্তদের উপস্থিতি লক্ষণীয় উল্লেখ করে তিনি বলেন, মধ্যবিত্তদের জন্য একটি গৃহঋণ তহবিল খুবই জরুরি। সবার ইচ্ছে আছে একটি সুন্দর ফ্ল্যাটের কিন্তু সামর্থ্যের ঘাটতি রয়েছে অনেকের। তৈরি ফ্ল্যাটের প্রতি আগ্রহ একটু বেশি বলেও জানান তিনি।

প্রতিবারের মত মেলায় ঋণ সুবিধা দিতে ব্যাংক এবং আর্থিক প্রতিষ্ঠান থাকায় বাড়তি সুবিধা পাচ্ছেন বলে জানিয়েছেন মেলায় আসা ক্রেতা সাধারণ। ক্রেতারা বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান ঘুরে তাদের প্রকল্পগুলোর প্রসপেক্টাস নিয়ে গেছেন। যাচাই বাছাই করে পরবর্তী সময়ে যোগাযোগ করবেন বলে অংশগ্রহণকারী প্রতিষ্ঠানগুলো প্রত্যাশা করছেন। প্রতিষ্ঠানগুলো জানিয়েছে মেলায় আসা ক্রেতাদের মধ্যে স্বল্প এবং মধ্যবিত্ত ক্রেতার সংখ্যা সবচেয়ে বেশি। আগ্রহ ছোট এবং মাঝারি ফ্ল্যাটের দিকে।

এবারের ফেয়ারে ১৬০টি প্রতিষ্ঠানের মোট ২৩০টি স্টল রয়েছে। এবছর ৩০টি বিল্ডিং ম্যাটেরিয়ালস ও ১৪ অর্থলগ্নীকারী প্রতিষ্ঠান অংশগ্রহণ করেছে রিহ্যাব ফেয়ারে। গত মঙ্গলবার গৃহায়ন ও গণপূর্তমন্ত্রী শ. ম. রেজাউল করিম, এমপি বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে এ ফেয়ারের উদ্বোধন করেন।

এই ফেয়ারের এন্ট্রি টিকিটের রাফ্রেল ড্র তে থাকছে আকর্ষণীয় সব মূল্যবান পুরস্কার। এ বছর মেলার শেষ দিন ২৮ ডিসেম্বর রাত নয়টায় রাফেল ড্র অনুষ্ঠিত হবে। রাফেল ড্র এর ১ম পুরস্কার- ১টি প্রাইভেট কার, ২য় পুরস্কার একটি মোটর সাইকেল, ৩য় পুরস্কার ১টি ফ্রিজ, ৪র্থ পুরস্কার-১টি ৪৩ ইঞ্চি এলইডি টেলিভিশন, ৫ম পুরস্কার-১টি ওয়াসিং মেশিন এবং ৬ষ্ঠ পুরস্কার- ডিপ ফ্রিজ (১টি), ৭ম পুরস্কার- মোবাইল ফোন (১টি), ৮ম পুরস্কার- মোবাইল ফোন (১টি), ৯ম পুরস্কার- মাইক্রো ওভেন (১টি) এবং ১০ম পুরস্কার- এয়ার কুলার (১টি)। এছাড়া আরও ৫টি পুরস্কার থাকবে।

www.rehabwinterfair2019.com এই ওয়েব সাইটে লটারি বিজয়ীদের নাম প্রকাশ করা হবে। উল্লেখ্য, ২০০১ সাল থেকে ঢাকায় আবাসন মেলা শুরু করে রিহ্যাব।

 

চিত্রদেশ//এস//

আরও

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button