প্রধান সংবাদসারাদেশ

পদ্মাপারের অপেক্ষায় তিন শতাধিক যান

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি:
নাব্যতা সঙ্কটের কারণে গত শনিবার থেকে প্রতিদিন সন্ধ্যা ৬টা থেকে ভোর ৬টা পর্যন্ত সব ধরনের ফেরি চলাচল বন্ধ রাখা হচ্ছিল কাঁঠালবাড়ি-শিমুলিয়া নৌরুটে। কিন্তু বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৮টা থেকে এই রুটে নাব্য সংকটের কারণে পুরোপুরি বন্ধ হয়ে গেছে ফেরি চলাচল। আজও তা বন্ধ আছে।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআইডব্লিউটিসি) কাঁঠালবাড়ী ঘাট সূত্র এ তথ্য জানিয়েছে। এদিকে, শিমুলিয়া ঘাটে পারাপারের অপেক্ষায় রয়েছে তিন শতাধিক পরিবহন।

সূত্রটি আরও জানিয়েছে, গত শনিবার থেকেই নৌরুটে নাব্য সঙ্কটের কারণে প্রতিদিন সন্ধ্যা ৬টা থেকে ভোর ৬টা পর্যন্ত সব ধরনের ফেরি চলাচল বন্ধ রাখা হচ্ছিল। তবে দিনে ৫-৬টি ছোট ফেরি চলাচল করতো। কিন্তু বৃহস্পতিবার নাব্যতা সঙ্কট আরও তীব্র হয়।

বিআইডব্লিউটিসি’র মেরিন কর্মকর্তা আহমদ আলী জানান, নাব্য সঙ্কটের কারণে ফেরি চলাচল করতে পারছে না। তাই গতকাল সকাল থেকে ফেরি বন্ধ রয়েছে। গতকাল সকালে দুটি ফেরি চ্যানেল অতিক্রম করতে গিয়ে ডুবোচরে বাধাগ্রস্ত হয়।

বিআইডব্লিউটিসির কাঁঠালবাড়ি ঘাটের ম্যানেজার আবদুল আলীম বলেন, চ্যানেলের নাব্য পুরোপুরি ঠিক না হওয়া পর্যন্ত ফেরি চলাচল সম্ভব নয়।

এদিকে ফেরি চলাচল বন্ধ থাকায় ঘাটে দুর্ভোগের সৃষ্টি হয়েছে। তিন শতাধিক পণ্যবাহী ট্রাক ও পরিবহন আটকে পড়েছে। পরিবহনের যাত্রীরা ঘাটে এসে পড়েছে বিপাকে। আর লঞ্চ ও স্পিডবোট চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে।

চিত্রদেশ//এল//

আরও

Leave a Reply

Back to top button